ঢাকা ০২:২২ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

হজের ভিসা আবেদনের সময় বাড়লো

চলতি বছর হজে যেতে ভিসা আবেদনের সময় বাড়লো। আগামী ৭ মে পর্যন্ত ভিসা আবেদন করা যাবে।

মঙ্গলবার (৩০ মে) ধর্মবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. মতিউল ইসলাম বলেন, ‘হজের ভিসা আবেদনের সময় ২৯ এপ্রিল বেধে দেওয়া হলেও আবেদন এখনও চালু আছে। আগামী কয়েকদিন ভিসা আবেদন চালু থাকবে।’

 

এর আগে গত ১৮ এপ্রিল হজ এজেন্সিগুলোর কাছে পাঠানো চিঠিতে ধর্ম মন্ত্রণালয় জানিয়েছিল, ২০২৪ সনের হজ কার্যক্রমে অংশগ্রহণকারী ২৫৯টি এজেন্সি/লিড এজেন্সির মোনাজ্জেম/স্বত্ত্বাধিকারীদের জানানো যাচ্ছে যে, রাজকীয় সৌদি সরকার ঘোষিত রোডম্যাপ অনুসারে আগামী ২৯ এপ্রিল হজযাত্রীদের ভিসা বন্ধ হয়ে যাবে। হজ কার্যক্রম পরিচালনাকারী সব এজেন্সি/লিড এজেন্সিকে ওই তারিখের আগেই হজযাত্রীদের জন্য বাড়ি/হোটেল ভাড়া ও যাতায়াতের জন্য বাস কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি সম্পন্ন করে ভিসা কার্যক্রম সম্পন্ন করতে হবে।

২৯ এপ্রিলের মধ্যে আবশ্যিকভাবে হজযাত্রীদের ভিসা সম্পন্ন করার নির্দেশ দিয়ে চিঠিতে বলা হয়, এজেন্সির অবহেলার কারণে হজযাত্রীদের হজে গমন অনিশ্চিত হলে সে এজেন্সির বিরুদ্ধে ‘হজ ও ওমরাহ ব্যবস্থাপনা আইন, ২০২১’ অনুসারে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

 

কিন্তু এখনও অনেক হজযাত্রীর ভিসা হয়নি। এ অবস্থায় ভিসার আবেদনের সময় বাড়াতে সৌদি কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করে ধর্ম মন্ত্রণালয়। সেই আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে প্রাথমিকভাবে সময় ৭ মে পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে বলে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

 

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে আগামী ১৬ জুন পবিত্র হজ অনুষ্ঠিত হবে। ২০২৪ সালের হজে বাংলাদেশ থেকে ৮৫ হাজার ২৫৭ জন হজ পালন করবেন। আগামী ৯ মে থেকে হজ ফ্লাইট শুরু হবে বলে ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে জানা গেছে।

হজের ভিসা আবেদনের সময় বাড়লো

আপডেট সময় : ০১:২৩:০০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ এপ্রিল ২০২৪

চলতি বছর হজে যেতে ভিসা আবেদনের সময় বাড়লো। আগামী ৭ মে পর্যন্ত ভিসা আবেদন করা যাবে।

মঙ্গলবার (৩০ মে) ধর্মবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. মতিউল ইসলাম বলেন, ‘হজের ভিসা আবেদনের সময় ২৯ এপ্রিল বেধে দেওয়া হলেও আবেদন এখনও চালু আছে। আগামী কয়েকদিন ভিসা আবেদন চালু থাকবে।’

 

এর আগে গত ১৮ এপ্রিল হজ এজেন্সিগুলোর কাছে পাঠানো চিঠিতে ধর্ম মন্ত্রণালয় জানিয়েছিল, ২০২৪ সনের হজ কার্যক্রমে অংশগ্রহণকারী ২৫৯টি এজেন্সি/লিড এজেন্সির মোনাজ্জেম/স্বত্ত্বাধিকারীদের জানানো যাচ্ছে যে, রাজকীয় সৌদি সরকার ঘোষিত রোডম্যাপ অনুসারে আগামী ২৯ এপ্রিল হজযাত্রীদের ভিসা বন্ধ হয়ে যাবে। হজ কার্যক্রম পরিচালনাকারী সব এজেন্সি/লিড এজেন্সিকে ওই তারিখের আগেই হজযাত্রীদের জন্য বাড়ি/হোটেল ভাড়া ও যাতায়াতের জন্য বাস কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি সম্পন্ন করে ভিসা কার্যক্রম সম্পন্ন করতে হবে।

২৯ এপ্রিলের মধ্যে আবশ্যিকভাবে হজযাত্রীদের ভিসা সম্পন্ন করার নির্দেশ দিয়ে চিঠিতে বলা হয়, এজেন্সির অবহেলার কারণে হজযাত্রীদের হজে গমন অনিশ্চিত হলে সে এজেন্সির বিরুদ্ধে ‘হজ ও ওমরাহ ব্যবস্থাপনা আইন, ২০২১’ অনুসারে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

 

কিন্তু এখনও অনেক হজযাত্রীর ভিসা হয়নি। এ অবস্থায় ভিসার আবেদনের সময় বাড়াতে সৌদি কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করে ধর্ম মন্ত্রণালয়। সেই আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে প্রাথমিকভাবে সময় ৭ মে পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে বলে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

 

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে আগামী ১৬ জুন পবিত্র হজ অনুষ্ঠিত হবে। ২০২৪ সালের হজে বাংলাদেশ থেকে ৮৫ হাজার ২৫৭ জন হজ পালন করবেন। আগামী ৯ মে থেকে হজ ফ্লাইট শুরু হবে বলে ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে জানা গেছে।