ঢাকা ০২:১৯ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পরাগের ক্যারিয়ারসেরা ইনিংসে দিল্লিকে হারাল রাজস্থান

রাজস্থান বনাম দিল্লি ম্যাচ। ছবি : বিসিসিআই

আইপিএলের ১৭তম আসরের শুরুটা মোটেও ভালো হয়নি দিল্লি ক্যাপিটালসের। পাঞ্জাবের পর এবার রাজস্থানের রয়্যালসের বিপক্ষে ম্যাচেও হারের মুখ দেখল রিকি পন্টিংয়ের শিষ্যরা। রিয়ান পরাগের ক্যারিয়ারসেরা ইনিংসে ভর করে ১২ রানের জয় তুলে নিয়েছে আইপিএলের প্রথম আসরের চ্যাম্পিয়ন রাজস্থান।

গতকাল বৃহস্পতিবার (২৮ মার্চ) নিজেদের ঘরের মাঠে আগে ব্যাটিং করে পাঁচ উইকেট হারিয়ে ১৮৫ রান তোলে রাজস্থান। জবাবে, পাঁচ উইকেটে ১৭৩ রানে থামে দিল্লি।

রাজস্থান প্রথম ১০ ওভারে করেছিল ৩ উইকেটে ৫৭ রান। পরের ১০ ওভারে করে ২ উইকেটে ১২৮ রান! যশস্বী জয়সওয়াল, জস বাটলার ও সানজু স্যামসন নতুন বলে ভুগেছেন। ইনিংসও বড় করতে পারেননি। রবিচন্দ্রন অশ্বিন পাঁচ নম্বরে উঠে ব্যাট করেন। বলার মতো অবদান রেখেছেন তিনি।

১৯ বলের ইনিংসে ৩ ছক্কায় ২৯ রান করেন অশ্বিন। ধ্রুব জুরেলও ছোট হলেও পরাগের ওপর থেকে চাপ কমান। ১২ বলে ৩ চারে ২০ রান করেন তিনি। অন্য প্রান্তে পরাগ ৪৫ বলে ৭ চার ও ৬ ছয়ে ৮৪ রানে অপরাজিত ছিলেন। অথচ আগের ৭ ইনিংস মিলিয়ে তার রান ছিল ৭৫।

১৮৬ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নেমে মিচেল মার্শ ও ডেভিড ওয়ার্নার দারুণ শুরু এনে দেন দিল্লিকে। চতুর্থ ওভারে মার্শকে ফিরিয়ে এই জুটি ভাঙেন নান্দ্রে বার্গার। একই ওভারে রিকি ভুইকেও ফেরান তিনি। ওয়ার্নার ও রিশাভ পান্ত প্রতিরোধ গড়লেও উইকেট মন্থর হয়ে পড়ে। ৬৭ রানের এই জুটি ভেঙে যায় ওয়ার্নারের বিদায়ে।

অস্ট্রেলিয়ান ওপেনার ৩৪ বলে ৪৯ রানে আবেশ খানের শিকার হন। এরপর টানা দুই ওভারে পান্ত ২৮ ও অভিষেক পোরেলকে ৯ রানে বিদায় করেন যুজবেন্দ্র চাহাল। ট্রিস্টান স্টাবস ঝলক দেখালেও আবেশ ও সন্দীপ শর্মা ডেথ ওভারে দারুণ বোলিং করে দলকে স্বস্তিতে রেখেছিলেন। ২৩ বলে ৪৪ রানে অপরাজিত ছিলেন স্টাবস। শেষ পর্যন্ত ৫ উইকেটে ১৭৩ রানে থামে দিল্লি।

পরাগের ক্যারিয়ারসেরা ইনিংসে দিল্লিকে হারাল রাজস্থান

আপডেট সময় : ০৬:১১:৪৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৯ মার্চ ২০২৪

আইপিএলের ১৭তম আসরের শুরুটা মোটেও ভালো হয়নি দিল্লি ক্যাপিটালসের। পাঞ্জাবের পর এবার রাজস্থানের রয়্যালসের বিপক্ষে ম্যাচেও হারের মুখ দেখল রিকি পন্টিংয়ের শিষ্যরা। রিয়ান পরাগের ক্যারিয়ারসেরা ইনিংসে ভর করে ১২ রানের জয় তুলে নিয়েছে আইপিএলের প্রথম আসরের চ্যাম্পিয়ন রাজস্থান।

গতকাল বৃহস্পতিবার (২৮ মার্চ) নিজেদের ঘরের মাঠে আগে ব্যাটিং করে পাঁচ উইকেট হারিয়ে ১৮৫ রান তোলে রাজস্থান। জবাবে, পাঁচ উইকেটে ১৭৩ রানে থামে দিল্লি।

রাজস্থান প্রথম ১০ ওভারে করেছিল ৩ উইকেটে ৫৭ রান। পরের ১০ ওভারে করে ২ উইকেটে ১২৮ রান! যশস্বী জয়সওয়াল, জস বাটলার ও সানজু স্যামসন নতুন বলে ভুগেছেন। ইনিংসও বড় করতে পারেননি। রবিচন্দ্রন অশ্বিন পাঁচ নম্বরে উঠে ব্যাট করেন। বলার মতো অবদান রেখেছেন তিনি।

১৯ বলের ইনিংসে ৩ ছক্কায় ২৯ রান করেন অশ্বিন। ধ্রুব জুরেলও ছোট হলেও পরাগের ওপর থেকে চাপ কমান। ১২ বলে ৩ চারে ২০ রান করেন তিনি। অন্য প্রান্তে পরাগ ৪৫ বলে ৭ চার ও ৬ ছয়ে ৮৪ রানে অপরাজিত ছিলেন। অথচ আগের ৭ ইনিংস মিলিয়ে তার রান ছিল ৭৫।

১৮৬ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নেমে মিচেল মার্শ ও ডেভিড ওয়ার্নার দারুণ শুরু এনে দেন দিল্লিকে। চতুর্থ ওভারে মার্শকে ফিরিয়ে এই জুটি ভাঙেন নান্দ্রে বার্গার। একই ওভারে রিকি ভুইকেও ফেরান তিনি। ওয়ার্নার ও রিশাভ পান্ত প্রতিরোধ গড়লেও উইকেট মন্থর হয়ে পড়ে। ৬৭ রানের এই জুটি ভেঙে যায় ওয়ার্নারের বিদায়ে।

অস্ট্রেলিয়ান ওপেনার ৩৪ বলে ৪৯ রানে আবেশ খানের শিকার হন। এরপর টানা দুই ওভারে পান্ত ২৮ ও অভিষেক পোরেলকে ৯ রানে বিদায় করেন যুজবেন্দ্র চাহাল। ট্রিস্টান স্টাবস ঝলক দেখালেও আবেশ ও সন্দীপ শর্মা ডেথ ওভারে দারুণ বোলিং করে দলকে স্বস্তিতে রেখেছিলেন। ২৩ বলে ৪৪ রানে অপরাজিত ছিলেন স্টাবস। শেষ পর্যন্ত ৫ উইকেটে ১৭৩ রানে থামে দিল্লি।