ঢাকা ১১:১৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঈদের কেনাকাটা বসুন্ধরা শপিং কমপ্লেক্সে কোথাও ভিড়, কোথাও নিশ্চুপ

ঈদের বাকি আর কয়েকদিন মাত্র। এরই মধ্যে ঈদকে রাঙাতে জমে উঠেছে কেনাকাটা। নগরীর বিভিন্ন মার্কেটের পাশাপাশি রাজধানীর অভিজাত বসুন্ধরা সিটি শপিং কমপ্লেক্সে চলছে কেনাকাটা।

শুক্রবার (৫ এপ্রিল) বসুন্ধরা সিটি ঘুরে দেখা গেছে, ক্রেতাদের পদচারণায় মুখরিত এই মার্কেট। পোশাক, গহনা, জুতা থেকে শুরু করে হাজারো রকমের পণ্যের সমাহার এখানে। ঈদের আগ মুহূর্তে সাপ্তাহিক ছুটির দিনে সকাল থেকে ক্রেতারা মার্কেটে আসতে শুরু করেছেন। রাজধানীর দূর-দূরান্ত থেকে পরিবারসহ আসছেন অনেকে। বেলা গড়িয়ে দুপুর হলেই বাড়তে থাকে ভিড়।

মার্কেটের দোকান মালিক সমিতির অফিস সূত্রে জানা গেছে, নিচতলা থেকে শুরু করে চতুর্থ তলা পর্যন্ত জামা-কাপড়ের দোকান। পঞ্চম তলায় রুয়েছে দেশি-বিদেশি ব্র্যান্ডের জুতার দোকান। আর ষষ্ঠ তলায় স্বর্ণ ও অলংকারের দোকান রয়েছে।

ব্র্যান্ডের দোকান গুলোতে দেখা গেছে উপচেপড়া ভিড়। বিশেষ করে আড়ং, ইয়েলো, জেন্টল পার্ক, ইলিয়েন, রিচম্যান, ইনফিনিটি মেগামল, ইজি, জারা, প্লাস পয়েন্ট, সেইলরসহ সব দোকানেই ভিড়। তবে মার্কেটের কোনো কোনো লোকাল ও শাড়ি দোকানে এর উল্টো চিত্র। এসব দোকানে ক্রেতার উপস্থিতি কম।

ব্যবসায়ীরা জানান, অন্যান্য বারের তুলনায় বেচাকেনা কিছুটা কম হয়েছে। ব্র্যান্ডের দোকানে উপচেপড়া ভিড় হলেও শাড়ি, থ্রি-পিছ, পাঞ্জাবি, প্যান্ট-শার্টের দোকানে তেমন ভিড় নেই।

বসুন্ধরা শপিং কমপ্লেক্সের লেভেল-২ এর রাজকুমার ফ্যাশনের বিল্লাল হোসেন জাগো নিউজকে বলেন, এবার বৈচিত্র্য ধরনের ভারতীয় পাঞ্জাবির কালেকশন রয়েছে। ১৫ রমজানের আগ পর্যন্ত ভালো বেচাকেনা হয়েছে। এখনো আবার কিছুটা কম। তরুণরা এখন ব্র্যান্ড শপের দিকে ঝুঁকছে বেশি। তবে এবার পাঞ্জাবির দোকানগুলোতে ভালোই বেচাকেনা হয়েছে।

ঈদের কেনাকাটা বসুন্ধরা শপিং কমপ্লেক্সে কোথাও ভিড়, কোথাও নিশ্চুপ

আপডেট সময় : ১২:৫৯:০৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ৬ এপ্রিল ২০২৪

ঈদের বাকি আর কয়েকদিন মাত্র। এরই মধ্যে ঈদকে রাঙাতে জমে উঠেছে কেনাকাটা। নগরীর বিভিন্ন মার্কেটের পাশাপাশি রাজধানীর অভিজাত বসুন্ধরা সিটি শপিং কমপ্লেক্সে চলছে কেনাকাটা।

শুক্রবার (৫ এপ্রিল) বসুন্ধরা সিটি ঘুরে দেখা গেছে, ক্রেতাদের পদচারণায় মুখরিত এই মার্কেট। পোশাক, গহনা, জুতা থেকে শুরু করে হাজারো রকমের পণ্যের সমাহার এখানে। ঈদের আগ মুহূর্তে সাপ্তাহিক ছুটির দিনে সকাল থেকে ক্রেতারা মার্কেটে আসতে শুরু করেছেন। রাজধানীর দূর-দূরান্ত থেকে পরিবারসহ আসছেন অনেকে। বেলা গড়িয়ে দুপুর হলেই বাড়তে থাকে ভিড়।

মার্কেটের দোকান মালিক সমিতির অফিস সূত্রে জানা গেছে, নিচতলা থেকে শুরু করে চতুর্থ তলা পর্যন্ত জামা-কাপড়ের দোকান। পঞ্চম তলায় রুয়েছে দেশি-বিদেশি ব্র্যান্ডের জুতার দোকান। আর ষষ্ঠ তলায় স্বর্ণ ও অলংকারের দোকান রয়েছে।

ব্র্যান্ডের দোকান গুলোতে দেখা গেছে উপচেপড়া ভিড়। বিশেষ করে আড়ং, ইয়েলো, জেন্টল পার্ক, ইলিয়েন, রিচম্যান, ইনফিনিটি মেগামল, ইজি, জারা, প্লাস পয়েন্ট, সেইলরসহ সব দোকানেই ভিড়। তবে মার্কেটের কোনো কোনো লোকাল ও শাড়ি দোকানে এর উল্টো চিত্র। এসব দোকানে ক্রেতার উপস্থিতি কম।

ব্যবসায়ীরা জানান, অন্যান্য বারের তুলনায় বেচাকেনা কিছুটা কম হয়েছে। ব্র্যান্ডের দোকানে উপচেপড়া ভিড় হলেও শাড়ি, থ্রি-পিছ, পাঞ্জাবি, প্যান্ট-শার্টের দোকানে তেমন ভিড় নেই।

বসুন্ধরা শপিং কমপ্লেক্সের লেভেল-২ এর রাজকুমার ফ্যাশনের বিল্লাল হোসেন জাগো নিউজকে বলেন, এবার বৈচিত্র্য ধরনের ভারতীয় পাঞ্জাবির কালেকশন রয়েছে। ১৫ রমজানের আগ পর্যন্ত ভালো বেচাকেনা হয়েছে। এখনো আবার কিছুটা কম। তরুণরা এখন ব্র্যান্ড শপের দিকে ঝুঁকছে বেশি। তবে এবার পাঞ্জাবির দোকানগুলোতে ভালোই বেচাকেনা হয়েছে।