ঢাকা ০৭:২৫ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

তামান্না ভাটিয়া ও সঞ্জয় দত্তকে সাইবার সেলে তলব

মনিটর এর দাম জানতে এখন-ই ক্লিক করুন

দক্ষিণী ইন্ডাস্ট্রির আলোচিত অভিনেত্রী তামান্না ভাটিয়া ও বলিউড অভিনেতা সঞ্জয় দত্তের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তারা একটি অবৈধ অনলাইন বেটিং অ্যাপের হয়ে প্রচার করেছেন। যে অবৈধ অ্যাপটির নাম ‘ফেয়ার প্লে’। এই অ্যাপেই অবৈধভাবে আপিএল টুর্নামেন্টের সম্প্রচার হয়েছে। এছাড়াও বেটিং চক্র চালানোর অভিযোগ রয়েছে ‘ফেয়ার প্লে’-র বিরুদ্ধে।

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, গত ২৩ এপ্রিল জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সঞ্জয় দত্তকে ডেকে পাঠায় মহারাষ্ট্র পুলিশের সাইবার সেল। যদিও অভিনেতা হাজিরা দেননি, কারণ হিসেবে জানিয়েছেন, তিনি ওই দিন ভারতে ছিলেন না। তাই হাজিরার জন্য অন্য তারিখ চেয়েছেন তিনি। আর এবার আগামী ২৯ এপ্রিল জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তামান্না ভাটিয়াকে ডেকেছে পুলিশ।

তামান্না ভাটিয়া ও সঞ্জয় দত্তের বিরুদ্ধে অভিযোগ, অ্যাপটির হয়ে প্রচারণা করেছেন তারা। এই অ্যাপে সিনেমা, সিরিজসহ নানান কিছু দেখা যায়। আর এগুলোর সঙ্গে এই অ্যাপেই অবৈধভাবে আইপিএল টুর্নামেন্টের সম্প্রচার করা হচ্ছিল। যদিও আইপিএল সম্প্রচারের স্বত্ব একমাত্র ভিয়াকম ১৮-এর কাছেই রয়েছে।

তামান্না ভাটিয়া ও সঞ্জয় দত্তের বিরুদ্ধে অভিযোগ, অ্যাপটির হয়ে প্রচারণা করেছেন তারা। এই অ্যাপে সিনেমা, সিরিজসহ নানান কিছু দেখা যায়। আর এগুলোর সঙ্গে এই অ্যাপেই অবৈধভাবে আইপিএল টুর্নামেন্টের সম্প্রচার করা হচ্ছিল। যদিও আইপিএল সম্প্রচারের স্বত্ব একমাত্র ভিয়াকম ১৮-এর কাছেই রয়েছে।

কোনো অনুমতি ছাড়াই এই ফেয়ার প্লে অ্যাপে আইপিএলের সম্প্রচার হয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, এতে তাদের আর্থিক ক্ষতি হয়েছে। তাদের অ্যান্টি-পাইরেসি দলের দাবি, ২০২৩-এর ৩১ মার্চ থেকে ৭ এপ্রিল পর্যন্ত ফেয়ার প্লে অ্যাপটি টাটা আইপিএল ম্যাচগুলো অবৈধভাবে লাইভ দেখিয়েছিল।

আর এই অ্যাপের প্রচারের জন্য ভারতের বিভিন্ন শহর, মেট্রো, ট্রেনসহ নানান জায়গায় বিজ্ঞাপনও দেয়া হয়েছিল। শুধু তাই নয়, বেটিং চক্র চালানোর অভিযোগ উঠেছে ফেয়ার প্লের বিরুদ্ধে।

শুধু সঞ্জয় কিংবা তামান্না নয়, এই অ্যাপের বিজ্ঞাপন করেছেন ৪০ জনের বেশি ভারতীয় তারকা। এর মধ্যে বলিউড অভিনেত্রী জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজ ও র‍্যাপার বাদশাহর নাম রয়েছে।

সকল প্রকার কম্পিউটার পূন্যের দাম জানতে এখন-ই ক্লিক করুন

তামান্না ভাটিয়া ও সঞ্জয় দত্তকে সাইবার সেলে তলব

আপডেট সময় : ০১:২৮:২০ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৭ এপ্রিল ২০২৪

দক্ষিণী ইন্ডাস্ট্রির আলোচিত অভিনেত্রী তামান্না ভাটিয়া ও বলিউড অভিনেতা সঞ্জয় দত্তের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তারা একটি অবৈধ অনলাইন বেটিং অ্যাপের হয়ে প্রচার করেছেন। যে অবৈধ অ্যাপটির নাম ‘ফেয়ার প্লে’। এই অ্যাপেই অবৈধভাবে আপিএল টুর্নামেন্টের সম্প্রচার হয়েছে। এছাড়াও বেটিং চক্র চালানোর অভিযোগ রয়েছে ‘ফেয়ার প্লে’-র বিরুদ্ধে।

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, গত ২৩ এপ্রিল জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সঞ্জয় দত্তকে ডেকে পাঠায় মহারাষ্ট্র পুলিশের সাইবার সেল। যদিও অভিনেতা হাজিরা দেননি, কারণ হিসেবে জানিয়েছেন, তিনি ওই দিন ভারতে ছিলেন না। তাই হাজিরার জন্য অন্য তারিখ চেয়েছেন তিনি। আর এবার আগামী ২৯ এপ্রিল জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তামান্না ভাটিয়াকে ডেকেছে পুলিশ।

তামান্না ভাটিয়া ও সঞ্জয় দত্তের বিরুদ্ধে অভিযোগ, অ্যাপটির হয়ে প্রচারণা করেছেন তারা। এই অ্যাপে সিনেমা, সিরিজসহ নানান কিছু দেখা যায়। আর এগুলোর সঙ্গে এই অ্যাপেই অবৈধভাবে আইপিএল টুর্নামেন্টের সম্প্রচার করা হচ্ছিল। যদিও আইপিএল সম্প্রচারের স্বত্ব একমাত্র ভিয়াকম ১৮-এর কাছেই রয়েছে।

তামান্না ভাটিয়া ও সঞ্জয় দত্তের বিরুদ্ধে অভিযোগ, অ্যাপটির হয়ে প্রচারণা করেছেন তারা। এই অ্যাপে সিনেমা, সিরিজসহ নানান কিছু দেখা যায়। আর এগুলোর সঙ্গে এই অ্যাপেই অবৈধভাবে আইপিএল টুর্নামেন্টের সম্প্রচার করা হচ্ছিল। যদিও আইপিএল সম্প্রচারের স্বত্ব একমাত্র ভিয়াকম ১৮-এর কাছেই রয়েছে।

কোনো অনুমতি ছাড়াই এই ফেয়ার প্লে অ্যাপে আইপিএলের সম্প্রচার হয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, এতে তাদের আর্থিক ক্ষতি হয়েছে। তাদের অ্যান্টি-পাইরেসি দলের দাবি, ২০২৩-এর ৩১ মার্চ থেকে ৭ এপ্রিল পর্যন্ত ফেয়ার প্লে অ্যাপটি টাটা আইপিএল ম্যাচগুলো অবৈধভাবে লাইভ দেখিয়েছিল।

আর এই অ্যাপের প্রচারের জন্য ভারতের বিভিন্ন শহর, মেট্রো, ট্রেনসহ নানান জায়গায় বিজ্ঞাপনও দেয়া হয়েছিল। শুধু তাই নয়, বেটিং চক্র চালানোর অভিযোগ উঠেছে ফেয়ার প্লের বিরুদ্ধে।

শুধু সঞ্জয় কিংবা তামান্না নয়, এই অ্যাপের বিজ্ঞাপন করেছেন ৪০ জনের বেশি ভারতীয় তারকা। এর মধ্যে বলিউড অভিনেত্রী জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজ ও র‍্যাপার বাদশাহর নাম রয়েছে।